শান্তিনিকেতনে বাংলাদেশ ভবন

শান্তিনিকেতনের নান্দনিক পরিবেশে দাঁড়িয়ে আছে বাংলাদেশ ভবন– বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের গর্বিত অংশ হিসাবে। এ ভবন প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে রবিতীর্থে রচিত হয়েছে বাংলা ও বাঙালির নবতর মেলবন্ধন। বাঙালির সৃজন ও মননচর্চার উজ্জ্বল স্মারকরূপে এ ভবন নবপ্রজন্মের শিক্ষার্থীদের প্রেরণা জোগাবে– এ প্রত্যাশা এখন সকলের। সরকারি চাকরির সুবাদে এ ভবনের স্থান নির্বাচনসহ সামগ্রিক কাজে সম্পৃক্ত ছিলেন লেখক। তাঁর অনুপুঙ্খ ও ইতিহাসনিষ্ঠ কলমে উঠে এসেছে বাংলাদেশ ভবন প্রতিষ্ঠার ইতিবৃত্ত। এ গ্রন্থ যুগপৎ স্মৃতিকথা ও ইতিহাস, যা আগামীদিনের পাঠক ও গবেষকদের কাছে তথ্যসূত্র হিসাবে বিবেচিত হবে।

৳ 895.00 ৳ 716.00

In stock

Book Details

Weight .549 kg
Dimensions 6.6 × 8.7 × .8 in
Binding Type

Language

ISBN

Publishers

Release date

Pages

About The Author

কামাল চৌধুরী

মধ্যসত্তরে প্রতিবাদী, দ্রোহী ও তারুণ্যদীপ্ত কবিতা নিয়ে কামাল চৌধুরীর আবির্ভাব। শুরুতে ঋজু উচ্চারণ, তীব্র ও গতিময় কাব্যভাষার কারণে হয়ে উঠেছিলেন আলোচিত ও বিশিষ্ট। সেই থেকে গত তিন দশকেরও বেশি সময়ের পরিশ্রুত কাব্য সাধনায় আরো ঋদ্ধ ও সংহত হয়েছেন কবিতায়। জন্ম ১৯৫৭ সালে, কুমিল্লা জেলার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার বিজয় করা গ্রামে। পুরস্কার : বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার (২০১১), রুদ্র পদক (২০০০), সৌহার্দ্য সম্মাননা, পশ্চিমবঙ্গ (২০০৩), কবিতালাপ পুরস্কার (২০০৪), জীবনানন্দ পুরস্কার (২০০৮), সিটি-আনন্দ আলো পুরস্কার (২০১০), আসাম বিশ্ববিদ্যালয় সম্মাননা (২০১১) ইত্যাদি। তিনি বর্তমানে ইউনেস্কো নির্বাহী বোর্ডে বাংলাদেশের প্রতিনিধি, বাংলা একাডেমির ফেলো, বাংলাদেশ এসিয়াটিক সোসাইটির জীবন সদস্য ও বাংলাদেশ রাইটার্স ক্লাবের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা। স্ত্রী ইফফাত আরা কামাল, পুত্র প্রমিত, পুত্রবধূ ফারিহা এবং কন্যা প্রতীতি নিয়ে সংসার।

শান্তিনিকেতনের নান্দনিক পরিবেশে দাঁড়িয়ে আছে বাংলাদেশ ভবন– বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের গর্বিত অংশ হিসাবে। এ ভবন প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে রবিতীর্থে রচিত হয়েছে বাংলা ও বাঙালির নবতর মেলবন্ধন। বাঙালির সৃজন ও মননচর্চার উজ্জ্বল স্মারকরূপে এ ভবন নবপ্রজন্মের শিক্ষার্থীদের প্রেরণা জোগাবে– এ প্রত্যাশা এখন সকলের। সরকারি চাকরির সুবাদে এ ভবনের স্থান নির্বাচনসহ সামগ্রিক কাজে সম্পৃক্ত ছিলেন লেখক। তাঁর অনুপুঙ্খ ও ইতিহাসনিষ্ঠ কলমে উঠে এসেছে বাংলাদেশ ভবন প্রতিষ্ঠার ইতিবৃত্ত। এ গ্রন্থ যুগপৎ স্মৃতিকথা ও ইতিহাস, যা আগামীদিনের পাঠক ও গবেষকদের কাছে তথ্যসূত্র হিসাবে বিবেচিত হবে।

Reviews

There are no reviews yet.

Be the first to review “শান্তিনিকেতনে বাংলাদেশ ভবন”

Your email address will not be published.